নতুন মহাকাশ স্টেশন তৈরি করবে রাশিয়া

নতুন মহাকাশ স্টেশন তৈরি করবে রাশিয়া

যে রাশিয়ান মহাকাশচারীরা আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনে ফাটল ধরার খবর দিয়েছিলেন সারা পৃথিবীকে, সেই রুশ স্পেস এজেন্সি রসকমোসই মঙ্গলবার ঘোষণা করে দিল, মহাকাশে তারা নিজেরাই একটি স্পেস স্টেশন তৈরি করবে এবং সেটা আইএসএস-এর চেয়ে (আন্তর্জাতিক স্পেস স্টেশন) অনেক শক্তিশালী ও কার্যকরী হবে। রসকমোসের ডিরেক্টর দিমিত্রি রগোজিন জানিয়েছেন, নতুন মহাকাশ স্টেশন তৈরি হতে সময় লাগবে পাঁচ থেকে ছয় বছর। স্পেস স্টেশনে রাখা হবে আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্সের উপাদান। এর সঙ্গে থাকছে রোবোট! যারা স্পেস স্টেশনের বাইরেও হেঁটে চলে বেড়াতে পারবে। স্পেস স্টেশনের বাইরে কোনও প্রযুক্তিগত ত্রুটি হলে সেই রোবোটগুলি মেরামত করার কাজেও নামবে।
রাশিয়া ইতিমধ্যে আইএসএস থেকে সরে যাওয়ার ইঙ্গিত দিয়েছে। আগেই রাশিয়া হুমকি দিয়েছিল, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র মহাকাশ বিভাগে নিষেধাজ্ঞা না তুলে নিলে আইএসএস থেকে নাম তুলে নেওয়া হবে। ২০২৫ হচ্ছে ডেডলাইন। জানা গিয়েছে, রাশিয়ার নতুন এই স্পেস স্টেশন তৈরি করতে খরচ হবে প্রায় ৬ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। প্রেসিডেন্ট পুতিন সবুজ সংকেত দিলে ২০৩০-এর মধ্যে রাশিয়া সৌরকক্ষে নিজেদের মহাকাশ স্টেশন স্থাপন করবে, এটা এখন আর নতুন খবর নয়। বরং, চিনের সঙ্গে তাদের সখ্যতা নিয়ে নতুনভাবে দুশ্চিন্তায় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। রাশিয়া আর চিন হাত মিলিয়েছে যৌথভাবে চাঁদে ইন্টারন্যাশনাল লুনার রিসার্চ স্টেশন তৈরি করার ব্যাপারে।