সাড়ে তিন হাজার বছরেও অবিকৃত মমি

সাড়ে তিন হাজার বছরেও অবিকৃত মমি

শতাব্দীর পর শতাব্দী ধরে মিশরের প্রাচীন রাজাদের সংরক্ষিত মৃতদেহ বা মমি নিয়ে কৌতুহলের শেষ নেই। এই তালিকায় থাকা শেষ সংযোজন খ্রীষ্টপূর্ব পঞ্চদশ শতকের রাজা প্রথম আমেনহোটেপ। সম্প্রতি এই মমির দেহ স্ক্যান করে বিস্মিত গবেষকরা। সাড়ে তিন হাজার পরও রাজার শরীর এখনও অক্ষত। এমনকী তার চিবুক এখনও সরু রয়েছে! তবে গবেষকরা একইসঙ্গে জানিয়েছেন এই মমির এত বছর পরেও অক্ষত থাকার অন্যতম এক কারণ। ফ্রন্টিয়ার্স ইন মেডিসিন জার্নালে প্রকাশিত এই গবেষণা জানিয়েছে মুর্তিটির আবরণ এত বছর পরও না খোলা অন্যতম সেই কারণ। এই মমিই প্রথম যার আবরণ এখনও খোলা হয়নি। ১৮৮১-তে প্রথমবার খোঁজ মিলেছিল আমেনহোটেপের। তার পরের ১৪০ বছর ধরে তার মমি নিখুঁতভাবে আবরণে ঢাকা রয়েছে দেহটি। ১৫২৫ থেকে ১৫০৪ খ্রীষ্টপূর্বাব্দে রাজা থাকা আমেনহোটেপের মমি এখন খুলতেও চাইছেন না গবেষকরা। কায়রো বিশ্ববিদ্যালয়ের রেডিওলজির অধ্যাপক ডাঃ সহর সালেম বলেছেন, “এই অবস্থায় থাকা মমির বিশ্লেষণ করতে আধুনিক যুগের গবেষকদের কাছে বিরাট সুবিধে হবে।” ডিজিটাল পদ্ধতিতে এই মমিটি বিশ্লেষণ করা হবে বলে জানিয়েছেন বিজ্ঞানীরা।