উষ্ণায়নে বদলে যাচ্ছে পরিযায়ী পাখিদের রাস্তাও

উষ্ণায়নে বদলে যাচ্ছে পরিযায়ী পাখিদের রাস্তাও

পৃথিবীর তাপমাত্রা বৃদ্ধিতে অনেক কিছুর সঙ্গে পরিবর্তন হয়ে যাচ্ছে পরিযায়ী পাখিদেরও রাস্তা! উষ্ণায়নের প্রতিফলনে যা এত বছর দেখা যেত না, সে-ও আজ ঘটছে বলে প্রাণীবিজ্ঞানীরা, পাখি বিশেষজ্ঞরা লক্ষ করছেন। কিছু পরিযায়ী পাখি এখন গরম সহ্য করতে না পেরে পূর্ব থেকে পশ্চিমেও চলে যাচ্ছে, কয়েক হাজার কিলোমিটার অতিক্রম করে! কারেন্ট বায়োলজি নামের এক বিজ্ঞান ম্যাগাজিনে প্রকাশিত এই গবেষণা থেকে জানা যাচ্ছে, রিচার্ড পিপিট এবং আরও বেশ কিছু গান গাওয়া পরিযায়ী পাখিরা তাদের দীর্ঘ যাত্রার পথ বর্তমানে বদলে ফেলেছে। শুধু গরম সহ্য করতে না পেরে! যেমন রিচার্ড পিপিটের জন্ম সাধারণত হয় গ্রীস্মের সাইবেরিয়ায়। শীত এলেই সে দক্ষিণ এশিয়ায় চলে যায়। এখন আর যায় না। এখন শীত এলে তার গন্তব্যস্থল হয় ইউরোপের দেশ! ফ্রান্স বা স্পেন! পাখি বিশেষজ্ঞদের পর্যবেক্ষণ, ৮০থেকে ৯০-এর দশকের মধ্যে প্রত্যেক বছর প্রচুর পরিমাণে রিচার্ড পিপিট এসেছে। এখনও আসছে। উষ্ণায়ন এই প্রাণীদের ওপর কতটা প্রভাব ফেলেছে তার আরও একটা উদাহরণ সুইডেনের এক জীববিজ্ঞানী পল ডুফোরের একটা পর্যবেক্ষণ। তার কথায়, “পূর্ব দিক থেকে যে সমস্ত পরিযায়ী পাখিরা হাজার হাজার কিলোমিটার ভ্রমণ করে শীতের জন্য ইউরোপের দেশগুলোতে আসছে তাদের অনেকেই কিন্তু গন্তব্যস্থলে পৌঁছতে পারছে না! তখন তারা হারিয়ে যাচ্ছে! কোথায় যাচ্ছে, শেষপর্যন্ত বেঁচে থাকছে কি না সে-ও জানা যাচ্ছে না!
পাখিদের গান গাওয়া মানুষের কারণে আজ বন্ধ হয়ে যাচ্ছে! পাখিদের হারিয়ে যাওয়া তারা বন্ধ করতে পারে না?