ওরাই পারে!

ওরাই পারে!

প্রকৃতির যত্ন নেওয়ার এ এক অভিনব উপায়। আল্পস পর্বতমালার একটি জনপ্রিয় পর্বত তিতলিস। উচ্চতায় ৩২৩৮ মিটার। পর্যটকরা সুইৎজারল্যান্ডে গিয়ে আল্পস দেখতে গেলে আগে দেখেন তিতলিস। কিন্তু গত কয়েক দশক ধরে সেই তিতলিসের বরফ গলে যাচ্ছে। আর সেই গলনের পরিমাণও বড় কম নয়। এর কারণ, হ্যাঁ বিশ্ব উষ্ণায়নই। উদ্বিগ্ন সুইস সরকারের ভয়, এই শতকের শেষে হয়ত আল্পসের ১৫০০ হিমবাহের পুরোটাই গলে যাবে, যদি না গ্রীনহাউস গ্যাস নিঃসরণ বন্ধ করা যায়।

তবে আপাতত তিতলিসকে বাঁচাতে সুইস সরকার এক অভিনব পন্থার আশ্রয় নিয়েছে। পর্বতের ওপরে তিতলিসের হিমবাহটা গ্রীষ্মকালে ঢেকে রাখা হবে! সূর্যকিরণের তীব্রতায় যাতে হিমবাহ আরও দ্রুত গলে না যায় তাই এই অভিনব উদ্যোগ। হিমবাহে বরফের পরিমাণ এবং বরফের অবস্থান দেখার দায়িত্বে থাকা জিয়ান ডার্মস জানিয়েছেন, এক বিশেষ ধরণের প্রোটেকটিভ পলিস্টারের আচ্ছাদন দিয়ে হিমবাহের মাথা ঢাকা হচ্ছে! এই কাজের জন্য নিয়োগ করা হয়েছে প্রচুর কর্মীও। ডার্মস জানিয়েছেন, এখনও পর্যন্ত হিমবাহের ১ লক্ষ বর্গকিলোমিটার অঞ্চল (প্রায় ১৪টা ফুটবল মাঠ) ঢাকার মতো আচ্ছাদন তৈরি করা হয়েছে। গবেষকরা জানাচ্ছেন, শুধু হিমবাহের বরফ গলাই আটকাবে না এই চাদরে, হিমবাহের ওপর সুর্যের কিরণ প্রতিফলিত হয়ে পরিবেশে পতিত হওয়াটাও বন্ধ করবে।
সব জেনেশুনে একটাই কথা বলতে ইচ্ছে হয়, ওরাই পারে!