পিঁপড়ের মস্তিস্ক গিলে বংশবিস্তার যে ছত্রাকের!

পিঁপড়ের মস্তিস্ক গিলে বংশবিস্তার যে ছত্রাকের!

প্রফেসর শঙ্কুর কথা মনে পড়ে যেতে পারে এদের কথা শুনলে। প্রশান্ত মহাসাগরের এক নাম না জানা দ্বীপে এক অদ্ভূত উদ্ভিদের কবলে পড়া প্রফেসরের। যে উদ্ভিদ মানুষের মস্তিস্ক গ্রাস করে নেয়! কিন্তু সম্প্রতি এক প্রাণিবিজ্ঞানীর গবেষণায় এই গল্প আজ বাস্তব! পৌঁছে যান ব্রাজিলের ক্রান্তীয় অরণ্যে। সেখানে অসংখ্য উঁচু গাছগুলোর মধ্যে এক বিশেষ ধরণের পাতা দেখতে পাবেন। মাটি থেকে সেই পাতার উচ্চতা ২৫ সেন্টিমিটারের কাছাকাছি হয়। একটু লক্ষ করলে দেখা যায় অদ্ভূত এক দৃশ্য। সেই বিশেষ পাতার কাছে আসতে থাকা সারি সারি পিপঁড়ের লাইন আর কিছুক্ষণের মধ্যে ওই পাতা অদৃশ্য হয়ে যাচ্ছে পিপঁড়েগুলোর পেটে! শরীর এবং মস্তিস্ক-পিপঁড়ের দু’টোই গ্রাস করে নেয় ওই পাতাটি!
ছত্রাকটির নাম ওপিওকর্ডিসেপস। পিপঁড়েগুলি ওই ছত্রাকের কাছে আসতেই ছত্রাকটি ধীরে ধীরে প্রবেশ করতে থাকে পিপঁড়েগুলির মস্তিস্কে। তারপর শুরু হয় তাদের বংশবিস্তার। তারপর দেখা যায় পিপঁড়ের মাথার পাশ দিয়ে বেরচ্ছে একটি শুঁড়। যাকে বিজ্ঞানীরা বলছেন ছত্রাকের রেণুথলি। সেখান থেকে রেণু ঝরে পড়ে পাতার কাছে আসতে থাকা বাকি পিপঁড়েদের শরীরে আর একইরকমভাবে তাদের মস্তিস্ক গ্রাস করে নেয়। গত ৪ বছর ধরে পিপঁড়ে আর ছত্রাকের এই খেলা পর্যবেক্ষণ করছেন পেনসিলভ্যানিয়া স্টেট বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞানী ডেবিউ হিউগ।