ব্যাঙের ছাতা থেকে চামড়া

ব্যাঙের ছাতা থেকে চামড়া

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার একটি জৈব প্রযুক্তি সংস্থার গবেষকরা সম্প্রতি ব্যাঙের ছাতা বা মাসরুম থেকে চামড়া তৈরির কথা বলেছেন, যা পশু চামড়ার বিকল্প হিসেবে কাজ করতে পারে। সকলেই জানেন মাসরুম আসলে একরকমের ছত্রাক। ছত্রাকের দেহের একাংশ গঠিত হয় মাইসেলিয়াম নামক অংশ দিয়ে। মাইসেলিয়াম অনেকটা সরু সুতোর মতো। এই মাইসেলিয়াম ব্যবহার করেই গবেষকরা তৈরি করেছেন কৃত্রিম চামড়া। গবেষকদের মতে বুননে ও স্থায়িত্বে সাধারণ চামড়াকে টক্কর দেবে মাইসেলিয়াম চামড়া।
যদি সত্যিই বাণিজ্যিক ভাবে মাইসেলিয়াম চামড়া ব্যবহার করা যায় তবে বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ বদল ঘটানো সম্ভব হবে।
ক)পশুচামড়া ব্যবহারের প্রয়োজন কম পড়বে ফলে পশু হত্যা কমবে।
খ) কৃত্তিম তন্তু ও প্লাস্টিকজাত দ্রব্যের ব্যবহার কমানো সম্ভব এর ব্যবহারে
গ) চর্ম শিল্পের স্বাভাবিক বায়ুদূষণ কমবে।
তবে আপাতত মাইসেলিয়াম চামড়ার কিছু সীমাবদ্ধতা রয়েছে। উৎপাদন ব্যাপক ব্যয়বহুল বলে গণ-উৎপাদনের রাস্থায় এখনই যাওয়া যাচ্ছে না। খুব নামী ফ্যাশান ডিজাইন সংস্থার মধ্যেই সীমাবদ্ধ রাখতে হয়েছে উৎপাদন। তবে গবেষণার সম্প্রসারণে উৎপাদনের খরচ কমিয়ে গণ- উৎপাদনের রাস্থায় হাঁটা যাবে- আশাবাদী গবেষকরা।