শুধু সামাজিক দূরত্বে কোভিড সংক্রমণ থামানো কঠিন

শুধু সামাজিক দূরত্বে কোভিড সংক্রমণ থামানো কঠিন

কোভিড-১৯ এর ভাইরাস হাওয়াবাহিত। তার থেকে সংক্রমণও ব্যপকভাবে ছড়ায়। তাই শুধু সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখলে এর সংক্রমণ প্রতিরোধ করা কঠিন। কেম্ব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের ইঞ্জিনিয়াররা কম্পিউটারের সহায়তায় একটি গবেষণা করে দেখেছেন কোনও মানুষ কাশলে তার ড্রপলেট কীভাবে এবং কতদূর ছড়াতে পারে। তাতে বেরিয়ে এসেছে মাস্ক না পরে থাকলে কোভিডে আক্রান্ত কোনও ব্যক্তির ড্রপলেট ২ মিটার দূরত্বে দাঁড়িয়ে থাকা ব্যক্তিকেও সংক্রামিত করতে পারে। গবেষকদের দল আরও জানিয়েছেন, এক থেকে তিন মিটার দূরত্বকে এত দিন ধরে যে নিরাপদ বলা হচ্ছিল সংক্রমণ ছড়ানোর ক্ষেত্রে সেটা আর নিরাপদ নয়। গবেষকদের বক্তব্য, মাস্ক পরে থাকা, টীকা নেওয়াও সংক্রমণ প্রতিরোধে ভীষণ প্রয়োজনীয়, বিশেষত শীতকালে। কারণ বিজ্ঞানীরা বলছেন গবেষণা থেকে জানা গিয়েছে কোভিড-১৯ এর ভাইরাস হাওয়াবাহিত। বার বার হাত ধোয়া ও ঘর পরিষ্কার করাকে গুরুত্ব দেওয়ার কথা বললেও কেম্ব্রিজের বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, মাস্ক পরা এদের মধ্যে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। কারণ মাস্ক না পরে থাকা কোনও কোভিড আক্রান্ত রোগীর কাশি হলে সেটা হাওয়াবাহিত বলে ২ মিটার পর্যন্ত ছড়িয়ে পড়তে পারে। এই গবেষণার সঙ্গে যুক্ত থাকা অন্যতম এক বিজ্ঞানী মাস্তোরাকোস বলেছেন, “আমরা মহামারীর অবসান দেখতে চাইছি। কিন্তু সঠিকভাবে সাবধানতা অবলম্বন করছি না। অফিস, স্কুল, কলেজের ক্লাসে, দোকান বাজারে ঘোরার সময় মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক। যতদিন এই ভাইরাস রয়েছে, আমাদের ঝুঁকি নেওয়া উচিতই নয়।”