হাজার বছরের ‘তাজা’ কঙ্কাল!

হাজার বছরের ‘তাজা’ কঙ্কাল!

পম্পেই। মনে পড়ে রোমের সেই রাজধানীর কথা? সম্রাট নীরোর সেই পম্পেই। ৭৯ খ্রীষ্টাব্দে ভিসুভিয়াস আগ্নেয়গিরির তাণ্ডবে পম্পেই ধ্বংস হয়ে গিয়েছিল। তার আগের কঙ্কাল! প্রত্নতাত্বিকরা সম্প্রতি খুঁজে পেলেন সেই কঙ্কালকে। পুরোটা মমিও হয়নি! একটা কান আর চুল এখনও বোঝা যাচ্ছে! এতটাই যত্নে সুরক্ষিত হয়েছিল যে দেখে বোঝার উপায় নেই কঙ্কালটির বয়স এত! মানুষটির শরীর দেখে প্রত্নতাত্বিকদের মনে হচ্ছিল যেন মাত্র কয়েকশ বছর আগের একটা কঙ্কাল! প্রত্নতাত্বিকরা নির্দ্বিধায় জানিয়ে দিয়েছেন, এখনও পর্যন্ত পম্পেই থেকে পাওয়া সমস্ত কঙ্কালের মধ্যে এটাই সবচেয়ে ‘তাজা’! একটা স্মারক শিলালিপির মাধ্যমে প্রত্নতাত্বিকরা মানুষটার নামও পেয়েছেন। মার্কাস ভেনেরিয়াস সেকান্দিও। একটু আশ্চর্যের বিষয়, সেই সময় বড়দের সাধারণত দাহ করা হত। সেখানে এই ভদ্রলোককে কেন সমাধিস্থ করে হয়েছিল সেটা প্রত্নতাত্বিকরা বুঝতে পারেননি।